বিশ্বকাপে ভারতের চূড়ান্ত দল

বিশ্বকাপে ভারতের চূড়ান্ত দল

ক্রীড়া ডেস্ক
অবশেষে অপেক্ষার অবসান হলো। বিরাট কোহলির নেতৃত্বে ইংল্যান্ডে আসন্ন বিশ্বকাপের জন্য ১৫ সদস্যের চূড়ান্ত দল ঘোষণা করেছে ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ড (বিসিসিআই)।

ঘোষিত দলে জায়গা হয়নি রিশব পান্থ ও আম্বাতি রাইডুর। তবে দলে রয়েছেন লুকেশ রাহুল, দিনেশ কার্তিক, মুরালি বিজয় ও রবীন্দ্র জাদেজা।

গত ১৫ এপ্রিল দুপুরের একটু পরই ভারতের প্রধান নির্বাচক এসকে প্রাসাদ, অধিনায়ক বিরাট কোহলি এবং কোচ রবি শাস্ত্রী মিলে তৈরি করলেন এই ১৫ সদস্যের দল।

এই দল ঘোষণা করেন নির্বাচক কমিটির প্রধান এমএসকে প্রসাদ।

মে মাসের শেষে শুরু হতে যাওয়া এই বিশ্বকাপে তৃতীয়বারের মতো ট্রফির লড়াইয়ে অবতীর্ন হবে ভারত।

বিশ্বকাপের দলে কারা কারা থাকতে পারেন, তা নিয়ে আগে থেকেই একটা ধারণা ছিলো। তবে কয়েকটি জায়গা নিয়ে আগ্রহও ছিলো সবার। ধোনির সঙ্গে ব্যাকআপ উইকেট রক্ষক হিসেবে রিশা পান্ত নাকি দিনেশ কার্তিক, অলরাউন্ডার কোটায় রবীন্দ্র জাদেজা কি আবারো সুযোগ পাবেন, চার নম্বরে আম্বাতি রাইডু নাকি বিজয় শঙ্কর?

শেষপর্যন্ত সব কিছুরই উত্তর মিললো ১৫ এপ্রিল দুপুরের পর। তিন নম্বর ওপেনার হিসেবে লোকেশ রাহুলই সুযোগ পেলেন বিশ্বকাপের দলে। চার নম্বরে সুযোগ মিললো তরুণ ক্রিকেটার বিজয় শঙ্করের। আর অভিজ্ঞ দিনেশ কার্তিকের ওপরই আস্থা রেখেছে টিম ইন্ডিয়ার ম্যানেজমেন্ট। স্পিন অলরাউন্ডার হিসেবে জায়গা মিললো রবীন্দ্র জাদেজার।

দল নিয়ে এমএসকে প্রসাদ বলেন, ধোনি ইনজুরিতে পড়লেই বিকল্প উইকেটরক্ষকে খেলতে হবে। উইকেটের পেছনে পান্তের চেয়ে কার্তিক ভালো হওয়ায় তাকে আমরা বেছে নিয়েছি। বিজয় শঙ্করও চারের চিন্তায় দলে আছে। রাহুল দলে ওপেনারের বিকল্প হিসেবে।’ রাইডু চ্যাম্পিয়নস ট্রফির পরে সুযোগটা নিতে পারেননি বলে মত প্রসাদের।

রাইডুর খোঁচা
গত ১৫ এপ্রিল আসন্ন ওয়ানডে বিশ্বকাপের জন্য নিজেদের স্কোয়াড ঘোষণা করে ভারতীয় ক্রিকেট দল। যেখানে সুযোগ পাননি ৩৩ বছর বয়সী মিডলঅর্ডার ব্যাটসম্যান আম্বাতি রাইডু। তার বদলে নেওয়া হয়েছে পেস বোলিং অলরাউন্ডার বিজয় শঙ্করকে।

অথচ আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে শঙ্করের চেয়ে রাইডুর পরিসংখ্যান কিংবা সাম্প্রতিক সময়ে বিজয়ের চেয়ে রাইডুর ফর্ম ভালো। তবু সুযোগ পাননি রাইডু, দলের সঙ্গে ইংল্যান্ডের বিমান ধরবেন শঙ্কর।

এখন পর্যন্ত ৫৫ ওয়ানডে খেলা রাইডু ৫০ ইনিংসে ব্যাট করে সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছেন তিনটি, নামের পাশে অর্ধশত রয়েছে ১০টি। সব মিলিয়ে ৪৭ গড়ে করেছেন ১৬৯৪ রান।

অথচ তার জায়গায় সুযোগ পাওয়া শঙ্কর এখন পর্যন্ত খেলেছেন মাত্র ৯টি ওয়ানডে। ব্যাট হাতে করেছেন ১৬৫ রান, বল হাতে উইকেট মাত্র ২টি।

শুধু তাই নয়, গত ছয় মাসেরও বেশি সময় ধরে ভারতীয় ক্রিকেট দলের কোচ রবি শাস্ত্রী, অধিনায়ক বিরাট কোহলি কিংবা সহ- অধিনায়ক রোহিত শর্মা বেশ কয়েকবার ইঙ্গিত দিয়েছেন, আসন্ন বিশ্বকাপে ভারতের হয়ে ৪ নম্বরে খেলতে নামবেন রাইডুই।

অথচ সে রাইডু কি-না ১৫ জনের দলেও সুযোগ পেলেন না। রাইডুর বদলে শঙ্করকে নেওয়ার যুক্তিস্বরূপ প্রধান নির্বাচক এমএসকে প্রসাদ বলেন, ব্যাপারটা এমন নয় যে রাইডু যোগ্য নয়। আসলে ব্যাপারটা হলো বিজয়ের পক্ষে যে ব্যাপারটি গেছে তা হলো, বিজয় দলে ত্রিমাত্রিক (থ্রি ডাইমেনশনাল) সার্ভিস দিয়ে থাকে। ব্যাটিং, বোলিংয়ের সঙ্গে, ফিল্ডিংটাও তার দুর্দান্ত।’

প্রধান নির্বাচকের এই ত্রিমাত্রিক সার্ভিস বিষয়ক যুক্তির বিপরীতে পাল্টা খোঁচা দিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারে রাইডু লিখেছেন, ‘বিশ্বকাপ দেখার জন্য মাত্রই একটা থ্রি ডাইমেনশনাল চশমা অর্ডার করলাম (যেহেতু শঙ্কর ত্রিমাত্রিক সার্ভিস দেখাবে)’।

ভারতের ১৫ সদস্যের বিশ্বকাপ দল
কিরাট কোহলি (অধিনায়ক), রোহিত শর্মা (সহ-অধিনায়ক), শিখর ধাওয়ান, লুকেশ রাহুল, বিজয় শঙ্কর, মহেন্দ্র সিং ধোনি, কেদার যাদব, দিনেশ কার্তিক, জুযভেন্দ্র চাহাল, কুলদ্বীপ যাদব, ভুবনেশ্বর কুমার, জাসপ্রিত সিংহ, হার্দিক পান্ডে, রবীন্দ্র জাদেজা ও মোহাম্মদ সামি।

Share